আলোচিত খবর

মা-কে শেষবার দেখতেও পাননি, সবাইকে কাঁদালেন পাক পেসার নাসির শাহ

রবিবার এশিয়া কাপ ২০২২-এর ম্যাচে পাকিস্তানকে ৫ উইকেটে

হারিয়েছে ভারতীয় দল। ভারতীয় সমর্থকদের এখন আনন্দের ঠিকানা নেই।

তবে হারের পরও আবেগ দিয়ে সবার মন জয় করেছেন পাকিস্তানের ফাস্ট বোলার নাসিম শাহ। পাকিস্তানের ফাস্ট বোলার নাসিম শাহ পায়ে চোট নিয়ে গোটা ম্যাচ খেলেছেন। ম্যাচের মাঝে বারবার চোটের জন্য কষ্ট পাচ্ছিলেন তিনি। মাঠেই চিকিৎসাও করাতে হয় তাঁকে। প্রবল ব্যথা সত্ত্বেও ভারতের বিরুদ্ধে ৪ ওভারে ২৭ রান দিয়ে ২টি উইকেট নেন এই তরুণ পেসার। নাসিম শাহের কোটার চতুর্থ ওভার শেষ করা তাঁর পক্ষে খুব কঠিন হয়ে দাঁড়িয়েছিল। সেই সময় তিনি প্রচণ্ড ব্যথার সঙ্গে লড়াই করছিলেন। ওই ওভারে

একবার নাসিম শাহ ব্যথায় চিৎকার করে মাটিতে বসে গেলেও সাহস হারাননি। ভারতের বিরুদ্ধে নিজের কোটার চার ওভার পূর্ণ করেন নাসিম শাহ। সোশ্যাল মিডিয়াতেও বেশ প্রশংসিত হচ্ছেন পাক পেসার। নাসিম শাহের ব্যক্তিগত জীবন একটা সময় বেশ কঠিন ছিল। ১৬ বছর বয়সে মাকে হারান পাকিস্তানি ফাস্ট বোলার। তিন বছর আগে ২০১৯ সালে নাসিম শাহের মা মারা যান। সেই সময় নাসিম শাহ পার্থে অস্ট্রেলিয়া এ-র বিরুদ্ধে ক্রিকেট ম্যাচ খেলছিলেন তিনি। মাকে শেষবারের মতো দেখার সুযোগও পাননি নাসিম শাহ। উল্লেখ্য, শাহিন শাহ আফ্রিদি চোটের জন্য এশিয়া কাপে খেলতে পারেননি। পাকিস্তানের অন্যতম পেসার তিনি। তাঁর বদলে নাসিম শাহের উপর বাড়তি দায়িত্ব ছিল। তিনি সেই দায়িত্ব পালন করেছেন। শুরুতেই কে এল রাহুলকে আউট করে ভারতকে চাপে রেখেছিলেন। পায়ে চোট না পেলে হয়তো ভারতের বিরুদ্ধে আরও ভাল পারফর্ম করতে পারতেন তিনি!

Related Articles

Back to top button