যা করেছি মুসলমান হিসেবে আল্লাহকে খুশি করতে করেছি-ইশরাক হোসেন

ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন নির্বাচনে বিএনপি মনোনীত মেয়র প্রার্থী দলের চেয়ারপারসনের আন্তর্জাতিক বি’ষয়ক উপদেষ্টা কমিটির সদস্য প্রকৌশলী ইশরাক হোসেন বলেছেন,

‘এই ঈদ কারোর জন্য আনন্দপূর্ণ ছিল না। তবে আমি বলব আল্লাহ যা করেন নিশ্চয়ই তার পরিকল্পনা মাফিক করেন।

জাগো নিউজের সঙ্গে আলাপকালে অবিভক্ত ঢাকার শেষ মেয়র সাদেক হোসেন খোকার ছেলে ইশরাক হোসেন এসব কথা বলেন।

ক’রোনাভা’ইরাসে পরিস্থিতির কারণে এবারের ঈদ সবার কাছে অচেনা পরিবেশে হলেও ইশরাকের এবারের ঈদ ছিল আরেকটু অন্যরকম।

অতিরিক্ত জনসমাগম হওয়ার সম্ভাবনা এড়াতে আমরা বাবার কবর জিয়ারত করতে ঈদের দিন যাই নাই।
স’রকারি চাকরি প্রার্থীদের এবার বড় সু’খবর দিয়েছে স’রকার

ক’রোনা ভাই’রাস দেখা দেওয়ার পর থেকে দেশের সকল চাকরির পরীক্ষা স্থগিত করে দেওয়া হয়। তবে অনেকে চাকরি প্রার্থীদের ব’য়স শেষের দিকে।

এ জন্য এই সকল চাকরি প্রার্থীরা বর্তমানে অনেক টেনশনে রয়েছে।আর এই পরিস্থিতিতে তারা আবার কবে পপরীক্ষা দিতে পারবে তার জন্য অনেক চিন্তায় রয়েছেন।

তবে এবার স’রকারের পক্ষ থেকে স’রকারি চাকরি প্রার্থীদের জন্য বড় সু’খবর এসেছে।ক’রোনাভা’ইরাসেের কারণে ৩০ বছর পেরিয়ে যাওয়া প্রার্থীদের চাকরির আবেদনে পাঁচ মাসের বেশি সময় ছাড় দিয়েছে স’রকার।

মঙ্গলবার (১৫ সেপ্টেম্বর) জনপ্রশাসন ম’ন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী মো. ফরহাদ হোসেন জানিয়েছেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশে স’রকারি চাকরি প্রত্যাশীদের এ সুযোগ দেয়া হচ্ছে।

ক’রোনাভা’ইরাসেের সং’ক্র’মণ প্রতিরোধে সাধারণ ছুটিতে স্বাভাবিক জীবনযাত্রার স’ঙ্গে স্থগিত ছিল স’রকারি-বেস’রকারি চাকরির নিয়োগ প্রক্রিয়া। এর মধ্যে অনেকেরই ব’য়স পেরিয়ে গেছে ৩০ বছর।

দু’র্যোগকালীন ৩০ বছর পেরিয়ে যাওয়া প্রার্থীদের চাকরির আবেদনে পাঁচ মাসের বেশি সময় ছাড় দিয়েছে স’রকার।

২৫ মার্চ যাদের ব’য়স ৩০ বছর হবে তারা আগস্ট পরবর্তী সময়ের নিয়োগ বিজ্ঞপ্তিতে আবেদনের সুযোগ পাবেন।

সবশেষ ২০১৭ সালে পরিসংখ্যান ব্যুরোর যে শ্রমশ’ক্তি জরিপ হয়েছিলো তাতে দেখা যায়, দেশে মোট কর্মক্ষম জনগোষ্ঠী ছয় কোটি ৩৫ লাখ।

এর মধ্যে কাজ করেন, ছয় কোটি আট লাখ না’রী পুরু’ষ। আর বেকার ২৭ লাখ। বেকারত্বের হার ৪.২ শতাংশ হলেও যুব বেকারত্বের হার ১১.৬ শতাংশ।

চলতি বছরের শুরুতে স’রকারি চাকরির তেমন কোন বিজ্ঞপ্তিই দেয়া হয়নি। ২৫ মার্চ থেকে সাধারণ ছুটি ঘোষণার পর তা একেবারেই বন্ধ হয়ে গেছে। এ নিয়ে অনেকটাই হতাশায় পড়েছিলেন চাকরি প্রার্থীরা।

এদিকে, ক’রোনা ভাই’রাসের কারণে এখনো দেশের সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ রয়েছে। আর এই কারণে দেশে বর্তামনে অনেক পরীক্ষা নেওয়া সম্ভাব হচ্ছে না।

তবে এই সময় সব থেকে দু:চিন্তায় রয়েছেন স’রকারি চাকরি প্রার্থীরা। আর এই সময় এবার স’রকারের পক্ষ থেকে এই সু’খবর দেওয়া হয়েছে।